সাতক্ষীরা থানা পুলিশের চেষ্টায় প্রতিবন্ধী খুঁজে পেলো তার পরিবার


 

সাতক্ষীরা থানা পুলিশের চেষ্টায় প্রতিবন্ধী খুঁজে পেলো তার পরিবার।থানা পুলিশের সূত্র জানায়,

গত ৩১-০৫-২০২১ ইং তারিখে লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ এর রামগতি থানার বর্ণিত বার্তার ভিত্তিতে জানা যায় যে, ফাহিমা বেগম (২২) (প্রতিবন্ধী) , পিং-মৃত সাইদুল হক, স্বামী-জাবের হােসেন পণ্ডিত, সাং-চর আলগী, থানা- রামগতি, জেলা-লক্ষীপুর থেকে একটি মেয়ে হারিয়ে গেছে। মেয়েটির সন্ধান থাকলে জানাতে বলা হয়।

উক্ত বার্তা প্রাপ্তির পর সাতক্ষীরা জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান পিপিএম (বার) এঁঁর দিক নির্দেশনা অনুযায়ী অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(প্রশাসন)  মোঃ সজিব খান এর তত্ত্বাবধানে সাতক্ষীরা থানার অফিসার ইনচার্জ দেলোয়ার হোসেন এর নির্দেশে সাতক্ষীরা থানাধীন সদর পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক (নিঃ) মােঃ জাহাঙ্গীর হােসেন, এসআই (নিঃ) রবীন চন্দ্র মন্ডল সঙ্গীয় ফোর্স সহ একটি অভিযান পরিচালনা করে।

উক্ত সংবাদের প্রেক্ষিতে সাতক্ষীরা থানাধীন সদর পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক (নিঃ) মােঃ জাহাঙ্গীর হােসেন, এসআই (নিঃ) রবীন চন্দ্র মন্ডল সঙ্গীয় ফোর্স সহ পুরাতন সাতক্ষীরা নাথপাড়াস্থ মােঃ আবুল কালাম আজাদ (৩৭), এর বসত বাড়ীতে সরেজমিনে উপস্থিত হয়ে ভিকটিম কে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে। তখন সে তার নাম ফাহিমা বেগম (২২) বলে জানায়।

উক্ত সময়ে তাকে একাধিকবার তার ঠিকানা জিজ্ঞাসা করিলেও সে তার সঠিক নাম ঠিকানা বলিতে পারে নি। তাকে দেখে এবং তার কথাবার্তা শুনে তাকে শারিরিকভাবে অসুস্থ ও কথাবার্তা এলামেলাে মনে হলে বিষয়টি উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করে উক্ত আবুল কালাম এবং তাহার স্ত্রীকে সাথে নিয়ে ভিকটিমকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করানাে হয়।

পরবর্তীতে ভিকটিম ফাহিমা বেগমকে থানায় এনে সাতক্ষীরা থানার সাধারন ডায়রী নং-৫১, তারিখ- ০১.০৬.২০২১ ইং মােতবেক নারী, শিশু, বয়স্ক ও প্রতিবন্ধী সার্ভিস ডেস্ক এর ইনচার্জ এসআই(নিঃ)/অপর্ণা বিশ্বাস এর তত্ত্বাবাধনে রেখে শারিরিক ও মানসিক সেবা প্রদান করা হয়।

পরবর্তীতে ভিকটিম ইং-০১.০৬.২০২১ তারিখ রাত্রে তার পূর্ণাঙ্গ নাম ঠিকানা ফাহিমা বেগম (২২), পিং-মৃত সাইদুল হক, স্বামী-জাবের হােসেন পণ্ডিত, সাং-চর আলগী, থানা- রামগতি, জেলা-লক্ষীপুর জানার পর রামগতি থানায় ডিউটি অফিসারের সাথে মােবাইলে যােগাযােগ করে উক্ত ভিকটিমের পরিবারের সদস্যদের সাথে যােগাযােগ করা হয় এবং তাহাদেরকে সাতক্ষীরা সদর থানায় এসে ভিকটিম ফাহিমা বেগমকে সনাক্ত পূর্বক পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহন করার অনুরােধ করা হয়।

পরবর্তীতে আজ ০৩ জুন ২০২১ তারিখ তার স্বামী মােঃ জাবের হােসেন পণ্ডিত (৫০), পিং- মৃত জোবল হক, সাং- চরআলগী, পানা-রামগাতি, জেলা-লক্ষীপুর এবং ভিকটিমের ভাই মােঃ আব্বাস (৩২), পিং-মৃত সাইদুল হক, সাং- চর আলগী, থানা-রামগতি, জেলা-লক্ষীপুরদ্বয় সাতক্ষীরা থানায় আসলে ভিকটিম ফাহিমা বেগম তাহার স্বামী ও ভাই ভাইকে চিনতে পারে।
ভিকটিম এর স্বামী মােঃ জাবের হােসেন পন্ডিত ভিকটিম এর ছবি ও জন্মসনদ প্রদান করিলে সেটি যাচাই-বাছই করে তাদের নিকট ভিকটিম ফাহিমাকে সাতক্ষীরা থানার সাধারন ডায়রী নং-১৪৫, তারিখঃ ০৩-০৬-২০২১ ইং মােতাবেক জিম্মায় প্রদান করা হয়।

সর্বোপরি সাতক্ষীরা থানা পুলিশের দীর্ঘ ৩-৪ দিনের নিরালস চেষ্টায় প্রতিবন্ধী ফাহিমা বেগম খুজে পায় তার নিজের পরিবার ।ফাহিমা ফিরে পেয়ে তার পরিবার সাতক্ষীরা জেলা পুলিশের প্রতি কৃজ্ঞতা প্রকাশ করেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You cannot copy content of this page